February 7, 2023

Shimanterahban24

Online News Paper


Warning: sprintf(): Too few arguments in /home/shimante/public_html/wp-content/themes/newsphere/lib/breadcrumb-trail/inc/breadcrumbs.php on line 254

সিলেটবাসীর ফুটবল বিশ্বকাপ যেন কাউন্সিলর আজাদ কাপ ফুটসাল টুর্নামেন্ট

1 min read

মোছাব্বি মাশরাফি :: সিলেট সিটি কর্পোরেশনের ২০ নং ওয়ার্ডের টানা চারবারের নির্বাচিত কাউন্সিলর আজাদুর রহমান আজাদ। এবারের নির্বাচনে তিনি বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয় লাভ করেন। যাকে শুধু ২০ নং ওয়ার্ড না পুরো সিলেটের মানুষের সবসময় কাছে পান তিনিই আজাদুর রহমান আজাদ,উনার এক অন্যতম আয়োজন কাউন্সিলর আজাদ কাপ। কাউন্সিলর আজাদ কাপে অনুষ্ঠিত হয়ে থাকে ব্যাডমিন্টন, ঘুড়ি উৎসব, ফুটসাল সহ হারিয়ে যাওয়া অনেক খেলা। এটি, সিলেট নগরীর টিলাগড় পয়েন্ট সংলগ্ন মাঠে অনুষ্ঠিত হয়। যেখানে এবছর অনুষ্ঠিত হচ্ছে কাউন্সিলর আজাদ কাপ ৩য় ফুটসাল টুর্ণামেন্ট। এ টুর্ণামেন্টে মোট ৫১২ টি টিম অংশগ্রহণ করে,যা থেকে বুঝা যায় নিশ্চয়ই এটি সিলেট তথা সারা বাংলাদেশের অন্যতম সেরা টুর্ণামেন্ট। যেখানে শুধু সিলেটের খেলোয়াড়েরা খেলেন না এখানে পুরো বাংলাদেশের সুনামধন্য খেলোয়াড়েরা, জাতীয় দলের খেলোয়াড়েরা সহ বিদেশি খেলোয়াড়েরা এসে খেলে থাকেন। এই টুর্ণামেন্ট দেখতে উপস্থিত হন,অনেক কাউন্সিলর,চেয়ারম্যান, মেয়র,এম পি, মন্ত্রী, জাতীয় ক্রিকেট দলের খেলোয়াড়, ফুটবল দলের খেলোয়াড়, ক্রিকেট দল অন্যতম নির্বাচক, সহ অনেক পর্যায়ের অনেক গন্যমান্য লোক। এখন আসি দর্শকদের পালায়,কাউন্সিলর আজাদ কাপ খেলা দেখতে মাঠে উপস্থিত হন কমপক্ষে প্রতিদিন ৫-১০ হাজার মানুষ। বলবেন এতো মানুষ কিভাবে খেলা দেখে? কাউন্সিলর আজাদুর রহমান আজাদ সাহেব দর্শকদের বসে খেলা দেখার জন্য আসন ব্যাবস্থা করে রেখেছেন। কিন্তু দর্শকদের তুলনায় আসন ব্যাবস্থা খুবই কম, খেলা পাগল দর্শকেরা তাদের আসন বানিয়ে ফেলেছেন এম সি কলেজের টিল্লা, বিভিন্ন দেওয়ালের উপর, বিভিন্ন উপায়ে মানুষ খেলা উপভোগ করে। যেখানে অনেকে এসে ঠেলা ঠেলি করে খেলা না দেখতে পেরে, ঘরে বসে গিয়ে সিলেটের লোকাল অনলাইন টিভি বাংলাভিউ এর পর্দায় এবং অনেকে ফেসবুক চ্যানেল এস এস এন এর পর্দায় উপভোগ করেন। যেখানে অনলাইনে ভিউ হয় খেলার ৯০ হাজারের উপরে। তা থেকে বুঝা যায় এটি নিঃসন্দেহে সিলেট সহ পুরো বাংলাদেশের সেরা টুর্ণামেন্ট। আবার বলা যায়,সিলেটের মাঠিতে সিলেট স্টেডিয়ামের পর আজাদ কাপ মাঠে সবচেয়ে বেশি দর্শক উপস্থিত হয়ে থাকেন, এবং,তারি সাথে সাথে পরিপূর্ণ থাকে, আমেজ,উত্তেজনা, আনন্দ, উল্লাসে ভরপুর,তা থেকে নিশ্চিত ভাবে বলা যায় এটি সিলেটবাসীর জন্য এক ফুটবল বিশ্বকাপ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Copyright © All rights reserved. | Newsphere by AF themes.