Main Menu

দারুসসালাম লাফনাউটের মাহফিলে অতিথিদের হাতে হাতে “আলোকপাত”

আবু তালহা তোফায়েল :: দেশের প্রাচীনতম দ্বীনি বিদ্যাপীঠ, গোয়াইনঘাটের সর্ববৃহৎ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান “জামেয়া আহলিয়া দারুসসালাম ও দারুল হাদীস লাফনাউট” এর বার্ষিক মাহফিলে ছত্রপুরি রহঃ স্মৃতি সংসদের পক্ষ থেকে প্রকাশিত হয় বিশেষ বুলেটিন “আলোকপাত”।

১৩ ফেব্রুয়ারী (বৃহস্পতিবার) দারুসসালামের বার্ষিক মাহফিলে বুলেটিনের মোড়ক উন্মোচন করা হয়।
আলোকপাতে রয়েছে দারুসসালামের পরিচিতি, ‘কলম হাতে জামেয়ার শিষ্যরা’সহ দারুসসালামে অধ্যয়নরত ছাত্রদের নিখুঁত হাতের লেখা।

আলোকপাত হাতে পেয়ে মুগ্ধ হয়েছেন আসসালাম ফুযালা পরিষদের প্রচার সম্পাদক ও গোয়াইনঘাট উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান জননেতা মাওলানা গোলাম আম্বিয়া কয়েছ, আলীরগাঁও কলেজের সভাপতি বিশিষ্ট সমাজসেবক নজরুল ইসলাম, মাদরাসার ফাজিল ও সাবেক শিক্ষক আলহাজ্ব মাওলানা বিলাল উদ্দিন, বিশিষ্ট সমাজসেবক সুহেল আহমেদ, সমাজসেবক ও শিক্ষানুরাগী আলহাজ্ব মাওলানা ইজ্জত উল্লাহ, মাদরাসার শিক্ষক মাওলানা জামাল উদ্দিন, বদরুল ইসলাম, মাওলানা আমিরুল ইসলাম, মাওলানা মুহসিন আহমেদ, হাফিজ জসিম উদ্দিন, মাওলানা ফারুক আহমেদ প্রমুখ।

এছাড়াও আলোকপাতের সম্পাদক ক্বারি মাওলানা আব্দুল্লাহ সালমানসহ সংশ্লিষ্ট সবাই মাদরাসার মুহতামিম খলিফায়ে ফেদায়ে মিল্লাত আব্দুল খালিক চাক্তা, শায়খুল হাদীস মাহমুদুল হাসান রায়গড়ি, শায়খে ছানী হুসাইন আহমদ গণীকান্দি, শিক্ষা সচিব নুরুল ইসলাম ফুড়িগ্রামি, মুহাদ্দিস আব্দুল মালিক, মুহাদ্দিস ও মুফতি সাহিত্যিক আমিনুর রশিদ গোয়াইনঘাটীসহ দারুসসালামের শিক্ষক মণ্ডলীর হাতে আলোকপাত পৌঁছান এবং তারা এব্যাপারে মন্তব্য করে বলেন, সাহিত্যিকতায় আমারা এগিয়ে যেতে হবে। যে জাতি তার মাতৃভাষার পণ্ডিত, সে জাতির উন্নতি নিশ্চিত। রাসুল সাঃ ও ছিলেন তার মাতৃভাষার পণ্ডিত। তাই আমরা এগিয়ে যেতে হলে আমাদের ভাষার পণ্ডিত হতে হবে, বাংলা ভাষার উপর পারদর্শী হতে হবে। সুদক্ষ সাহিত্যিক গড়ে তোলতে হবে।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *